ডায়াবেটিস কিছুতেই বাগে আসছে না? নেপথ্যে যে চার কারণ

সুগার বা ডায়াবেটিস মানেই বড়সড় শারীরিক সমস্যা।‌ তা সামাল দিতে আপনাকে বাদ দিতে হয়েছে নানারকম খাওয়াদাওয়া। সবসময় যেন সতর্ক থাকতে হয় আপনাকে। কিন্তু তারপরও ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে নেই। আসলে কয়েকটি অভ্যাস চালু করছেন না বলেই এমনটা হচ্ছে।‌

চলুন তবে এক নজরে দেখে আসি তেমনই চারটি অভ্যাস সম্পর্কে, যেগুলো প্রতিদিন মেনে না চলার কারণে রক্তে সুগার বা ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে থাকছে না।

শরীরচর্চার অভ্যাস না করা

বয়স যা-ই হোক, নিয়মিত শরীরচর্চার অনেক উপকার রয়েছে। তার মধ্যে একটি হলো ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখা। নিয়মিত ১০ থেকে ১৫ মিনিট ব্যায়াম করলে ডায়াবেটিস নিয়ে আর চিন্তা থাকবে না। অথচ প্রতিদিনকার কাজের ব্যস্ততায় শরীরচর্চা করতেই আমরা ভুলে যাই।

স্বাস্থ্যকর ফ্যাটজাতীয় খাবার না খাওয়া

ওজন কমাতে বলেছেন চিকিৎসক। তাই ফ্যাটজাতীয় খাবার বাদ দিয়েছেন খাবারের তালিকা থেকে। অথচ স্বাস্থ্যকর ফ্যাটজাতীয় খাবার কিন্তু শরীরের জন্য জরুরি।‌ তাই এই খাবার অল্প করে হলেও খেতে হবে। এতে প্রতিদিনকার কাজ করার শক্তি পাবেন।

ফাইবার বেশি করে না খাওয়া

বাদ তো দিলেন অনেক খাবার।‌ কিন্তু কেমন খাবার যোগ করলেন পাতে? বিশেষজ্ঞদের কথায়, ডায়াবেটিস থাকলে ফাইবার জাতীয় খাবার বেশি করে খাওয়া জরুরি। হয়তো সেটিই আপনি খাচ্ছেন না। তাই পাতে বাদামজাতীয় খাবার থেকে শাকসবজি বেশি করে রাখুন। এতে ডায়াবেটিস নিয়ে ভয় কমবে।

মানসিক চাপ

অতিরিক্ত মানসিক চাপ নিলেও কিন্তু সুগার বাড়তে পারে। তাই মানসিক চাপ কমাতে হবে প্রথমেই‌। মনকে শান্ত ও ভালো রাখুন। নয়তো হাজার চেষ্টা করলেও নিয়ন্ত্রণে থাকবে না সুগার। মোটকথা, সুস্থ থাকতে চাইলে প্রতিদিন কিছু নিয়ম আপনাকে মানতেই হবে।