অথৈ জলে – মোঃ ইবাদুল হাসান (ইবু)

Last updated:
বাবা তোমার আঙুল ধরে
শক্ত করে খুব,
নাইতে নেমে দীঘির জলে
দিয়ে যেতাম ডুব।
তোমার খোকন ভেসে না যায়
রাখতে আমায় ধরে,
বাবাই এখন হারিয়ে গেল
আমায় রেখে দূরে।
বাবার স্নেহ ভালোবাসা,
কল্পনারই আধার,
শক্ত হাতের পরশ মাখা
পাইনা ফিরে আর!!
বাবার মুখের মিষ্টি হাসি
কেবল কল্পনায়,
ব্যথায় ভরা দিন কেটে যায়
নিরব যন্ত্রনায়।
সেই দীঘিটা আজও আছে
আজও আমায় ডাকে,
দীঘির পারে একাই বসি
বাবা হারার শোকে।
দিন ফুরিয়ে আঁধার নামে
যাচ্ছে জীবন চলে
ইচ্ছে করে যাই হারিয়ে
দীঘির অথৈ জলে।
===
আমার প্রয়াত পিতা প্রফেসর আবদুল মাজেদ হাওলাদার ১৯৯১ সনের ৫ এপ্রিল চির নিদ্রায় শায়িত হন বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলাধীন বর্তমান বরিশাল বিমান বন্দরের পাশে অবস্থিত সবুজে ঘেরা নদী বেষ্টিত তার প্রিয় জন্মভূমি ক্ষুদ্রকাঠি গ্রামের মাটির মায়ায়।জীবনের দীর্ঘ সময় আলোর দিশারি আমার বাবা সিলেট সরকারি মুরারি চাঁন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ(এম সি কলেজ)বরিশাল সরকারি ব্রজমোহন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ(বি,এম কলেজ)সহ বাংলাদেশের স্বনামধন্য বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে অধ্যাপনার মতো মহৎ পেশায় নিজেকে নিয়োজিত রেখেছেন। এছাড়া ক্রিয়া ও সামাজিক সাংস্কৃতিক অঙ্গনে ছিল তার দ্বীপ্ত পদচারনা। বাবার মৃত্যু বার্ষিকীতে পৃথিবীর সকল বাবাদের প্রতি শ্রদ্ধা এবং দোয়া জানিয়ে আমার লেখাটি উৎসর্গীত…